শনিবার, ১৭ নভেম্বর ২০১৮, ০৯:২৯ অপরাহ্ন



নওগাঁয় ১৫ ব্যাগ রক্তসহ আটক ১

নওগাঁয় ১৫ ব্যাগ রক্তসহ আটক ১



নওগাঁ প্রতিনিধি: নওগাঁয় অবৈধ ভাবে সংরক্ষণ করা মানুষের বিভিন্ন গ্রুপের ১৫ ব্যাগ রক্তসহ মিলন জোয়ার্দ্দার (৩৬) নামে এক যুবককে আটক করেছে থানা পুলিশ। শনিবার রাত ১২টার দিকে সদর উপজেলার পিরোজপুর গ্রামে আটককৃতের বাড়ি থেকে রক্তগুলো উদ্ধার করা হয়। আটক মিলন জোয়ার্দ্দার গ্রামের আব্দুল খালেক জোয়ার্দ্দারের ছেলে। ঘটনায় নওগাঁ সিভিল সার্জন অফিস মেডিকেল অফিসার ডা: আশিষ কুমার সরকার বাদী হয়ে মামলা দায়ের করেন।

নওগাঁ সদর থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) আব্দুল হাই বলেন, মিলন জোয়ার্দ্দার বিভিন্ন মাদকসেবীদের তার বাড়িতে নিয়ে এসে অবৈধ ভাবে রক্ত সংগ্রহ করে। পরে রক্তগুলো বিভিন্ন ক্লিনিকে সরবরাহ করে থাকে। গোপন সংবাদের ভিত্তিতে থানার এসআই আব্দুর রাজ্জাক সঙ্গীয় ফোর্স নিয়ে অভিযান পরিচালনা করে তার বাড়ির ফ্রিজে সংরক্ষন করে রাখা ১৫ ব্যাগ (৬ হাজার ৫৭০ মিলি) বিভিন্ন গ্রুপের মানুষের রক্ত উদ্ধার করা হয়। সেই সাথে তাকে আটক করা হয়। এ ঘটনার সাথে অন্য কেউ সম্পৃক্ত থাকলে তাদেরও আটক করা হবে। রক্ত, রক্তের উপাদান ও রক্তজাত সামগ্রী সংগ্রহ, উৎপাদন ও বিতরণের উদ্যেশ্যে নিজ হেফাজতে রাখায় রক্ত পরিসঞ্চালন আইন, ২০০২ এর ১৮/২৪ ধারায় মামলা হয়েছে।

নওগাঁ সিভিল সার্জন ডা: মুমিনুল হক বলেন, সাধারনত চারমাস পর পর রক্ত দেয়ার নিয়ম। কিন্ত যারা মাদক সেবন করে তারা টাকার লোভে ২/৩ মাস পর পর রক্ত দেয়। যার কারণে রক্তকণিকা গুলো পরিপূর্ণতা পায়না। ফলে যতটুকু উপকার হওয়ার কথা তা হয়না। এছাড়া রক্ত ক্রসম্যাচিং ও বিভিন্ন পরীক্ষা নিরীক্ষা করার দরকার হলেও তারা হয়তো করে না। যদি কোন ক্লিনিক এর সাথে সম্পৃক্ত থাকে তদন্ত করে ওই ক্লিনিকের বিরুদ্ধে ব্যবস্থা গ্রহন করে বন্ধ করে দেয়া হবে।

খবরটি শেয়ার করুন..








© All rights reserved 2018 somoyersangbad24.com

Desing & Developed BY W3Space.net