রবিবার, ১৮ নভেম্বর ২০১৮, ০৮:৩১ অপরাহ্ন



রাজশাহীতে ঐক্যফ্রন্টের সমাবেশ দুপুরে

রাজশাহীতে ঐক্যফ্রন্টের সমাবেশ দুপুরে



একাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচনকে সামনে রেখে ৭ দফা দাবি আদায়ের লক্ষ্যে রাজশাহীতে আজ সমাবেশ করবে জাতীয় ঐক্যফ্রন্ট। ঐতিহাসিক মাদরাসা মাঠে অনুষ্ঠিত হবে এ সমাবেশ।

শুক্রবার (৯ নভেম্বর) জাতীয় ঐক্যফ্রন্ট আয়োজিত এই সমাবেশ থেকেই সরকার পতনের আন্দোলনের ঘোষণাসহ বিএনপি চেয়ারপারসন খালেদা জিয়ার মুক্তি দাবি আসতে পারে বলে জানা গেছে।

এর আগে ঢাকা থেকে রাজশাহী অভিমুখে রোডমার্চ করার কথা থাকলেও তা স্থগিত করে শুধু সমাবেশই করার সিদ্ধান্ত নেয় সরকার বিরোধী এই জোট। সমাবেশ সফল করতে ইতোমধ্যেই সকল প্রস্তুতি সেরেছে রাজশাহীর বিএনপি নেতারা।

এ দিকে শুক্রবারের (৯ নভেম্বর) আয়োজিত এ সমাবেশে প্রধান অতিথি হিসেবে বক্তব্য রাখার কথা রয়েছে ঐক্যফ্রন্টের প্রধান নেতা ও গণফোরাম সভাপতি ড. কামাল হোসেন। এছাড়া প্রধান বক্তা হিসাবে উপস্থিত থাকবেন ঐক্যফ্রন্টের মুখপাত্র ও বিএনপি মহাসচিব মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীর।

রোডমার্চ স্থগিতের ঘোষণা দিয়ে বৃহস্পতিবার মির্জা ফখরুল জানান, রোডমার্চকে কেন্দ্র করে নেতাকর্মীদের মামলা ও গ্রেফতারের শঙ্কায় এই কর্মসূচি স্থগিত করা হচ্ছে। তবে কালকের (রাজশাহী) সমাবেশ অনুষ্ঠিত হবে।

এ দিকে বিএনপির চেয়ারপারসনের উপদেষ্টা মিজানুর রহমান মিনু বলেছেন রাজশাহীতে জাতীয় ঐক্যফ্রন্টের সমাবেশ থেকে খালেদা জিয়ার মুক্তি ও সরকার পতনের গণআন্দোলনের আহ্বান আসবে। বৃহস্পতিবার (৮ নভেম্বর) দুপুরে মহানগর বিএনপির কার্যালয়ে সংবাদ সম্মেলনে তিনি একথা বলেন।

এছাড়া বর্তমান নির্বাচন কমিশন জোকারদের নির্বাচন কমিশন বলে মন্তব্য করে তিনি বলেন, অযোগ্য নির্বাচন কমিশন। এ ধরনের নির্বাচন কমিশনকে জনগণ মানে না। তাদের কোনো কথার দাম নেই। তিনি আরও বলেন, এ নির্বাচন কমিশন যদি সিডিউল ঘোষণা করে তাহলে জনগণকে সঙ্গে নিয়ে তা বাতিল করে আবারও রি-শিডিউল ঘোষণা করা হবে।

রাজশাহীর সমাবেশকে কেন্দ্র করে বিএনপির নেতাকর্মীদের হয়রানি করার অভিযোগ তুলে মিনু বলেন, প্রশাসনের অতি উৎসাহী কর্মকর্তারা নেতাকর্মীদের বাড়ি বাড়ি গিয়ে তল্লাশির নামে হয়রানি ও গ্রেফতার করছে। এছাড়া সমাবেশের প্রচারেও বাধা দেয়ার অভিযোগ করেন সাবেক মেয়র।

জাতীয় ঐক্যফ্রন্টের শরিক জেএসডি সভাপতি আ স ম আবদুর রব বলেছেন, নির্বাচনের তফসিল অবশ্যই পেছাতে হবে। অন্যথায়, নির্বাচনে যাবে না ঐক্যফ্রন্ট।

জাতীয় ঐক্যফ্রন্টের মুখমাত্র ও বিএনপি মহাসচিব মির্জা ফখরুল বলেন, নির্বাচন কমিশন এক তরফা নির্বাচন করার জন্য তফসিল ঘোষণা করেছেন। যা জনগণের আশা আকাঙ্ক্ষার প্রতিফল হয়নি। এছাড়া তিনি বলেন, ‘আমরা যা বলব আগামীকাল রাজশাহীতে যে সমাবেশ হবে সেখানেই বলব।

বৃহস্পতিবার (৮ নভেম্বর) জাতির উদ্দেশে ভাষণের মাধ্যমে প্রধান নির্বাচন কমিশনার (সিইসি) কে এম নূরুল হুদা একাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচনের তফসিল ঘোষণা করেন। আগামী ২৩ ডিসেম্বর জাতীয় নির্বাচন অনুষ্ঠিত হবে বলে ঘোষণা দেন তিনি। এর পর ঐক্যফ্রন্ট ও বিএনপি নেতাদের পক্ষ থেকে তাৎক্ষণিক প্রতিক্রিয়ায় এসব কথা উঠে।

এর আগে রাজশাহীতে সমাবেশের অনুমতি চেয়ে গত ২২ অক্টোবর নগর বিএনপি সভাপতি মোসাদ্দেক হোসেন বুলবুল ও সাধারণ সম্পাদক শফিকুল হক মিলন ঐক্যফ্রন্টের পক্ষে রাজশাহী মহানগর পুলিশের (আরএমপি) কাছে আবেদন করেন। পরে বিএনপি নেতারা কয়েকবার আরএমপি কমিশনার একেএম হাফিজ আক্তারের সঙ্গে সাক্ষাৎ করেন। কিন্তু অনুমতি মিলছিল না।

সর্বশেষ গত বুধবার দুপুরে বুলবুল ও মিলন আরএমপি কমিশনারের কাছে যান। ওই দিন বিকালে পুলিশ নগরীর গণকপাড়া মোড়ে সমাবেশের অনুমতি দেয়ার কথা জানালেও পরে মাদরাসা মাঠে সায় দেয়।

আরএমপির মুখপাত্র জ্যেষ্ঠ সহকারী কমিশনার ইফতেখায়ের আলম সাংবাদিকদের জানান, সমাবেশের জন্য ঐক্যফ্রন্টের প্রথম পছন্দ ছিল মাদরাসা মাঠ। বিকল্প হিসেবে তারা সাহেববাজার, গণকপাড়া মোড় ও মনি চত্বরের নাম লিখেছিল। কিছু শর্তে গণকপাড়া মোড়ে তাদের সমাবেশের জন্য অনুমতি দেয়া হয়। এরপর রাত পৌনে ৯টায় তিনি মাদরাসা মাঠেই তাদের সমাবেশের অনুমতি দেয়া হয়েছে বলে নিশ্চিত করেন।

সমাবেশ সফল করার জন্য রাজশাহীর নেতাকর্মীরা প্রস্তুত বলে জানিয়েছেন বিএনপি চেয়ারপার্সনের উপদেষ্টা মিজানুর রহমান মিনু। তিনি বলেন, রাজশাহীতে জাতীয় ঐক্যফ্রন্টের বিভাগীয় মহাসমাবেশ থেকেই সরকার পতন আন্দোলন শুরু হবে।

বায়ান্নোর ভাষা আন্দোলন, একাত্তরের মহান মুক্তিযুদ্ধ- সব এ রাজশাহী থেকে সূত্রপাত হয়। রাজশাহী থেকেই গণতান্ত্রিক সব আন্দোলনের সূচনা। এখান থেকেই শুরু হবে সরকার পতনের আন্দোলন। এ আন্দোলনে নেতাকর্মীদের রাজপথে থাকার আহ্বান জানান মিনু।

সরকারের সঙ্গে দ্বিতীয় দফা সংলাপে সাত দফা দাবি আদায় না হলে ৯ নভেম্বর রাজশাহীতে সমাবেশ করা হবে বলে গত মঙ্গলবার ঘোষণা দিয়েছিল জাতীয় ঐক্যফ্রন্ট। রাজধানীর সোহরাওয়ার্দী উদ্যানে অনুষ্ঠিত জনসভায় বিএনপি মহাসচিব ও ঐক্যফ্রন্টের মুখপাত্র মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীর এ কর্মসূচির ঘোষণা দেন।

খবরটি শেয়ার করুন..








© All rights reserved 2018 somoyersangbad24.com

Desing & Developed BY W3Space.net